বাবার মোটরসাইকেল থেকে পড়ে মেয়ের মৃ’ত্যু, ছেলে আহত!

6 / 100

ছেলে-মেয়েকে সঙ্গে নিয়ে কর্মস্থলে ফিরছিলেন সিরাজগঞ্জ পলিটেকনিক ইন্সটিটিউটের জুনিয়র ইনস্ট্রাকটর (ম্যানেজমেন্ট) মহসিন আলী।

পথে মোটরসাইকেল থেকে ছিটকে পড়ে নিহত হয় মেয়ে শ্রেয়সী। এ ঘটনায় বাবা-ছেলেও আহত হয়েছেন।

রোববার (০৮ মে) সকাল পৌনে ৭টার দিকে হাটিকুমরুল-ঢাকা আঞ্চলিক সড়কের হানিফ হোটেল সংলগ্ন ধোপাকান্দি এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে।

শ্রেয়সী (১৩) সিরাজগঞ্জ পলিটেকনিক ইন্সটিটিউটের জুনিয়র ইনস্ট্রাকটর মহসিন আলীর একমাত্র মেয়ে ও সিরাজগঞ্জ সালেহা ইসহাক সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের সপ্তম শ্রেণির ছাত্রী।

আহত হয়েছেন মহসিন আলী ও তার ছেলে চতুর্থ শ্রেণির ছাত্র রমীম (৯)। তাদের গ্রামের বাড়ি সিরাজগঞ্জের তাড়াশ উপজেলার মাগুড়া বিনোদ ইউনিয়নের দোবিলা গ্রামে। তিনি পরিবার নিয়ে সিরাজগঞ্জ শহরেই বসবাস করেন।

সিরাজগঞ্জ পলিটেকনিক ইন্সটিটিউটের ইনস্ট্রাকটর (পদার্থ) সানাউল্লাহ হক বিপুল ঢাকা পোস্টকে বলেন, মহসিন আলী তার গ্রামের বাড়ি থেকে সকালে ছেলে-মেয়েকে নিয়ে মোটরসাইকেলে করে কর্মস্থলে ফিরছিলেন।

ধোপাকান্দি এলাকায় পৌঁছালে মোটরসাইকেলের চাকার নিচে ইটের বড় টুকরা পড়ে। এতে মোটরসাইকেল নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে সবাই মহাসড়কে ছিটকে পড়েন।

এ সময় ঢাকাগামী দূরপাল্লার একটি বাস শ্রেয়সীকে চাপা দিলে ঘটনাস্থলেই তার মৃ”ত্যু হয়। আহত দুজনকে উদ্ধার করে স্থানীয় একটি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। তবে আহত দুজনই পুরোপুরি সুস্থ আছে।

হাটিকুমরুল হাইওয়ে থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) লুৎফর রহমান ঢাকা পোস্টকে বলেন, দু”র্ঘটনার খবর পাওয়ার পর হাইওয়ে থানার পুলিশ গিয়ে ম”রদেহ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে। পরিবারের কোনো অভিযোগ না থাকায় ম”রদেহটি পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।

Leave a Comment