আপত্তিকর ভিডিও ছড়ানোর ভয় দেখিয়ে ছাত্রীকে একাধিকবার ধর্ষণ

7 / 100

আপত্তিকর ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে (ফেসবুকে) ছড়িয়ে দেয়ায় ভয় দেখিয়ে এক ছাত্রীকে একাধিকবার ধর্ষণের অভিযোগ ওঠেছে।
আপত্তিকর ভিডিও ছড়ানোর ভয় দেখিয়ে ছাত্রীকে একাধিকবার ধর্ষণ
সাইফুর রহমান রকি

১ মিনিটে পড়ুন

অভিযুক্ত রাজশাহীর মোহনপুর উপজেলায় কারিগরি ও বাণিজ্যিক ইনস্টিটিউটের শিক্ষক মাসুদ সরকারের বিরুদ্ধে শুক্রবার (২৯ জুলাই) দুপুরে জেলা সাংবাদিক ইউনিয়নে সংবাদ সম্মেলনে করে ভুক্তভোগী ওই ছাত্রীর পরিবার।

ধর্ষণের শিকার ওই ছাত্রী বলেন, ‘রাজশাহীর মোহনপুর উপজেলার বাটুপাড়া কারিগরি ও বাণিজ্যিক ইনস্টিটিউটের শিক্ষক মাসুদ আমার দূরসম্পর্কের আত্মীয়। সেই সূত্র ধরে আমাদের বাসায় যাওয়া-আসা ছিল তার।’তিনি জানান, ২০১৯ সালের ১০ মে অভিযুক্ত শিক্ষক মাসুদের বাড়িতে দুধ দিতে গেলে তিনি কৌশলে তাকে ধর্ষণ করেন এবং মোবাইল ফোনে ভিডিও ধারণ করে রাখেন। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে (ফেসবুকে) ওই ভিডিও ছড়িয়ে দেয়ার ভয়ভীতি দেখিয়ে পরেও বেশ কয়েকবার তাকে ধর্ষণ করেন তিনি।
ঘটনায় অভিযুক্ত শিক্ষকের উপযুক্ত বিচার দাবি করেন ধর্ষণের শিকার ওই ছাত্রীর পরিবারের সদস্যরা।

পুলিশ জানায়, অভিযোগ পেলে এ ব্যাপারে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।
ভুক্তভোগীর স্বজনরা জানান, পরীক্ষার খাতায় বেশি নম্বর পাইয়ে দেয়া ও বিয়ের আশ্বাসে আরও কয়েকজন ছাত্রীর সঙ্গে শারীরিক সম্পর্ক গড়ে তোলেন মাসুদ সরকার নামের ওই শিক্ষক। তবে মানসম্মানের ভয়ে তারা মুখ খোলার সাহস পাচ্ছেন

Leave a Comment